ব্রাজিল দলের গোপন শক্তিটা ফাস করলেন কেন দানিলোই !!

ব্রাজিল দলে যেকোনো খেলোয়াড়ই যেকোনো জায়গায় খেলতে পারেন—কথাটা দলের রাইটব্যাক দানিলোর। চোট কাটিয়ে দক্ষিণ কোরিয়ার বিপক্ষে তিনি ফিরেছিলেন। তিনি জানিয়েছেন কোয়ার্টার ফাইনালের ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ম্যাচে

রেকর্ডের উপর রেকর্ড করেও নিজেকে তুচ্ছ মনে করার কারন কি !!

চেন্নাই সুপার কিংসের হয়ে ২০২১ সালের আইপিএলে ৬০০-র উপর রান ছিল রুতুরাজের। চেন্নাই সে বার ট্রফি যেতে। এ বছর যদিও সে ভাবে নজর কাড়তে পারেননি

নেইমারকে দেখে ক্রোয়েশিয়া কেন চিন্তিত!!

রয় কিনের মতো কিছু কিছু প্রাক্তন ফুটবলার এই নাচকে বিপক্ষের প্রতি অশ্রদ্ধা প্রকাশ বলে অভিহিত করেছেন। এ দিন তিতে ফের তার বিরোধিতা করলেন। একই সঙ্গে

নেদারল্যান্ডস এর সাথে কি তাহলে ম্যাচ হারতে চিলেছে আর্জেন্টিনা!!

দি মারিয়া, লাউতারোর পাশাপাশি চোট রয়েছে রদ্রিগোর। কী ভাবে সামাল দেবেন, সেটাই চিন্তা স্কালোনির। তার মাঝেই নেদারল্যান্ডসের কোচ লুইস ফান হাল হুঁশিয়ারি দিয়ে রেখেছেন, শুক্রবার

রোনালদোকে নিয়ে এ কি বিপদে পরলেন পর্তুগাল !!

কী এক অবস্থায়ই না পড়েছেন পর্তুগালের কোচ ফার্নান্দো সান্তোস! মরক্কোর বিপক্ষে কোয়ার্টার ফাইনাল নিয়েই শুধু নয়, তাঁকে এখন ভাবতে হচ্ছে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোকে সামলানোর বিষয় নিয়েও।সুইজারল্যান্ডের

ব্রাজিলের সংবাদ সম্মেলনে টেবিলের ওপরে চড়ে বসা বিড়ালটি কে নিয়ে এত কথা কেন শুরু হল!!

ঘটনা হচ্ছে, বুধবার ব্রাজিলের সংবাদ সম্মেলনে ঢুকে পড়েছিল একটি বিড়াল। যেনতেন ঢুকে পড়া নয়, ভিনিসিয়ুস জুনিয়র কথা বলার সময় টেবিলের ওপর চড়ে বসে বিড়ালটি। দুই

দি পলকে কেন এত তুচ্ছ করছে আর্জেন্টিনা??

৩৬ বছর পর আবার বিশ্বকাপ শিরোপা ঘরে উঠবে—এই স্বপ্ন দেখছে আর্জেন্টাইনরা। লিওনেল মেসির স্বপ্ন ক্যারিয়ারের প্রথম বিশ্বকাপ জয়ের। এই স্বপ্ন পূরণ থেকে আর্জেন্টিনা দল আর

মেসির স্ত্রী এ কি বললেন!!

দুজন খুবই ভালো বন্ধু। জাতীয় দলে লম্বা সময় একে অপরের সঙ্গে জুটি বেঁধে খেলেছেন। ক্লাব ফুটবলেও একসঙ্গে খেলার সম্ভাবনা জেগেছিল, যদিও শেষ পর্যন্ত তা আলোর

দলের সঙ্গে যোগ দিচ্ছেন ডাকাতির পর দেশে ফেরা স্টার্লিং

লন্ডনের বাড়িতে ডাকাতি হওয়ায় কাতার বিশ্বকাপ থেকে ইংল্যান্ডে ফেরা রাহিম স্টার্লিং আবারও দলের সঙ্গে যোগ দিতে যাচ্ছেন। আগামী শনিবার কোয়ার্টার ফাইনালে ফ্রান্সের মুখোমুখি হবে ইংল্যান্ড।

শিরোপা নির্ধারণ করে দিতে পারে যে বিষয়

নেইমার-ভিনিসিউস-রিশার্লিসন ত্রয়ীর ব্রাজিলের দুর্দান্ত আক্রমণভাগ, কিলিয়ান এমবাপের গতি কিংবা জাদুকরী লিওনেল মেসি। কি মনে হচ্ছে, ফরোয়ার্ডরা নির্ধারণ করে দেবেন বিশ্বকাপ শিরোপা? তা হয়তো দিতেও পারেন।